150340

বিনা মহরে বিয়ে, কী বলে ইসলাম?

রোকন হারুন: বিনা মহরে কোন নারীকে বিয়ে করলে সে বিয়ে বৈধ হবে। বিয়ের পর স্ত্রীর সঙ্গে সহবাস কিংবা একান্ত নির্জনবাস করার পর স্বামী-স্ত্রীর কোন একজন মারা গেলে এক্ষেত্রে ‘মহরে মিছিল’ ওয়াজিব হবে। (মহরে মিছিল হলো, স্ত্রীর বাব-দাদার বংশের মেয়েদের মহর, যেমন- বোন, চাচাত বোন, ফুফু, ভতিজী প্রমুখের যে হারে মহর ধার্য হয়েছে সে পরিমাণে মহরকে মহরে মিছিল বলে৷)

বিনা মহরে বিবাহিত স্ত্রীর সঙ্গে সহবাসের আগে কিংবা একান্ত নির্জনবাসের আগেই স্বামী যদি স্ত্রীকে তালাক দেয় তাহলে মহরে মিছিল পাবে না বরং সে ‘মুত‘আ’ পাবে। (মুত‘আ হল, এক সেট থ্রী পিস।)  সূত্র: আলমগীরী, ১ম খণ্ড।

স্ত্রীর মহর যদি বিচারাক  কিংবা স্বামী নির্ধারণ করেন। এরপর স্ত্রীর সঙ্গে সহবাস করে বা একান্তে নির্জনবাস করে অথবা একজন মারা যায় তাহলে স্ত্রী তার পূর্ণ মহর পাবে। আর যদি স্ত্রীর সঙ্গে সহবাস ও একান্ত নির্জনবাসের আগেই স্বামী তাকে তালাক দেয় তাহলে ‘মুত‘আ’ ওয়াজিব হবে।   সূত্র: আলমগীরী, ১ম খণ্ড।

যে সব বিয়েতে মহর ধার্য করা হয় না এবং মহরের আলোচনাও করা হয় না ওই সব বিয়েতে স্ত্রী-সহবাস ও নির্জনবাসের আগে স্ত্রীকে তালাক দেয়া হলে মহর ওয়াজিব হবে না। কেবল ‘মুত‘আ’ ওয়াজিব হবে। সূত্র: ফাতাওয়ায়ে দারুল উলূম, ৮ম খণ্ড।

এ এ/

 

ad

পাঠকের মতামত

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *