157495

‘মুসলিম বিদ্বেষী বরিসকে প্রধানমন্ত্রী করা হলে পদত্যাগ করব’

আওয়ার ইসলাম: ব্রিটেনের সাবেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসন ক্ষমতাসীন টরি পার্টির নেতা হিসেবে নির্বাচিত হলে দল ত্যাগের ঘোষণা দিয়েছেন দলটির মুসলিম ফোরামের প্রধান মুহাম্মদ আমিন।

ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী তেরেসা মে’র পদত্যাগের পর তার স্থলাভিষিক্ত হওয়ার জন্য দেশটিতে নেতা নির্বাচন চলছে। আর এতে বিপুল জনপ্রিয়তা নিয়ে এগিয়ে রয়েছেন বিতর্কিত বরিস জনসন।

দলীয় নেতৃত্বে এগিয়ে থাকা বরিস জনসনকে ভাঁড় আখ্যা দিয়েছেন কনজারভেটিভ পার্টির দীর্ঘ সময়ের এ সদস্য।

বিবিসি রেডিও ফোরের টুডের এক অনুষ্ঠানে দেয়া সাক্ষাতকারে তিনি বলেন, তাকে যে দল নেতা হিসেবে বেছে নেবে, সেই দলের সদস্য থাকার জন্য আমি প্রস্তুত নই। এমনকি ৩৬ বছর ধরে এ দলের সঙ্গে থাকার পর আমি সরে যাবো।

দলের ভেতর জনসনের জনপ্রিয়তা নিয়ে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, পৃথিবীতে বহু ঘৃণ্য ব্যক্তি আছেন, যারা জনপ্রিয়। জনপ্রিয়তা কোনো পরীক্ষা না। পরীক্ষা হলো, প্রধানমন্ত্রী হওয়ার ক্ষেত্রে কোনো ব্যক্তি যথেষ্ট নৈতিকবোধ সম্পন্ন কি না; এবং আমার বিশ্বাস, বরিসের সেটা নেই।

নাৎসি একনায়কের জনপ্রিয়তার সঙ্গে জনসনের তুলনা করে তিনি বলেন, বহু জার্মান নাগরিক ভাবতেন, হিটলার ঠিক পথেই রয়েছেন।

এটাকে বেদনাদায়ক তুলনা উল্লেখ করে তিনি বলেন, তার মানে আমি এমনটা বলছি না যে বরিস জনসন লোকজনকে গ্যাস চেম্বারে পাঠাতে চাচ্ছেন। পরিষ্কারভাবেই তিনি তা চাচ্ছেন না। তবে তিনি একজন ভাঁড়।

এছাড়াও নিজের স্বার্থের জন্য মুসলমান নারীদের নিকাব ও বোরকা নিয়ে মশকরা করেছিলেন লন্ডনের এ সাবেক মেয়র। এ ঘটনায় বরিসের তীব্র সমালোচনা করেন মুহাম্মদ আমিন।

-এএ

ad

পাঠকের মতামত

Comments are closed.