162745

কবি মুসা আল হাফিজের নির্বাচিত ‘মাহফুজ’

আওয়ার ইসলাম: মুসা আল হাফিজ। কবি , গবেষক , সাহিত্য সমালোচক, দার্শনিক, ছড়াকার , অনুবাদক, মুহাদ্দিস, একজন বাগ্মী কিংবা একজন ঐতিহাসিক। আওয়ার ইসলামের পাঠকদের জন্য তার নির্বাচিত কয়েকটি ‘মাহফুজ’ তুলে ধরা হলো।

১. পিতলকে মজা করেও সোনা বলো না। একসময় সোনা ও পিতলের ব্যবধান ভুলে যাবে।

২. দু’ একটি দেশলাইকাটিতে অগ্নিকাণ্ড হতে পারে। কিন্তু দু’একটি কোকিলে বসন্ত আসে না!

৩. গোলাপের সঙ্গে কাঁটার যে সম্পর্ক, বাঙালির সঙ্গে হুজুগের সেই সম্পর্ক!

৪. অনুচিত কারণে কাউকে শাস্তি দিতে যারা বাঘ হয়ে যায়, উচিত কারণে কাউকে শাস্তি দিতে তারা বেড়াল হয়ে থাকবেই

৫. বাগানের সফলতা ডালের শাখায় ফুল ফোটানোতে, সমাজ ও সংঘের সফলতা ব্যক্তি ও সদস্যের বিকাশে!

৬. মেধা হলো সারের মতো। তাকে ধরে রেখো না, ছিটিয়ে দাও, ফসল ফলবে।

৭. নির্বোধরা যখন আমার প্রশংসা করে, চিন্তায় পড়ে যাই- কোথায়, কী ভুল করলাম!

৮. আমি কাউকে সাধারণত গ্রন্থের লেখক হবার পরামর্শ দিই না, আমি পরামর্শ দিই, যেন একজন নিজেই বিচরণশীল গ্রন্থে পরিণত হয়।

৯. মানুষ সাধারণত তাকেই চায়, যার কাছ থেকে তার দূরে থাকা উচিত

১০. কথা থামাও, যেন লোকেরা বলে-উনি থেমে গেলেন কেন? কথা থামাও, যেন লোকেরা না বলে – উনি থামে না কেন?

১১. আসবাবপত্র অতিব্যবহারে জীর্ণ হয়। কিন্তু যত বেশি ব্যবহৃত হবে, ততই সবল ও চকচকে হবে হৃদয়।

১২. ছাগল নিয়মিত ঘাস খেয়ে চলছে, এতে ঘাসের দোষ নেই। কিন্তু শোষক ধারাবাহিকভাবে শোষণ করেই চলছে,এতে শোষিতের দোষ রয়েছে।

১৩. যে সমাজের কাছে মাথা নয়, পেটই গুরুত্বপূর্ণ, সে সমাজ পৃথিবীকে কেবল বর্জ্য উপহার দেবে!

১৪. হৃদয়ের ব্যবহারে সাবধান। এ নাজুক কাচপাত্র ভেঙ্গে গেলে জোড়া লাগানো মুশকিল!

১৫. যখন তুমি সম্পদ হারালে, সামান্য হারালে। যখন মেজাজ হারালে, নিজের অর্ধেক হারালে। কিন্তু যখন বিবেক হারালে, নিজের সবকিছু হারিয়ে নি:স্ব হয়ে গেলে!

১৬. নদী হও! কতো মাঠ,জনপদ, উপত্যকা,শহর, জঙ্গল দিয়ে সে চলে। কিন্তু কোথাও সে সমুদ্র নামক আপন গন্তব্যকে ভুলে যায় না!

১৭. যদি পোকা শিকার করতে চাও, দোয়েল হলেই চলবে। যদি শিকার করতে চাও হিংস্র সাপ, তোমাকে হতে হবে সমুদ্রঈগল!

১৮. স্বপ্ন হোক বিশাল। স্বপ্ন যদি হয় আকাশ ছাড়ানোর, তাহলে সম্ভবত আকাশে যাওয়া যাবে কিংবা আকাশের কাছাকাছি। স্বপ্ন যদি হয় গাছের মগডালে যাওয়া, তাহলে হয়তো থেমে যেতে হবে গাছের অর্ধেকেই!

১৯. যাদের কাছে জীবন মানে নিছক বেঁচে থাকতে পারা, তারা অচিরেই বেঁচে থাকার স্বাদ ও অধিকার হারাবে!

২০. মানুষ চায় নিজের ঘরে আগুন না লাগুক। কিন্তু যখন সে পাশের ঘরে আগুন নিভাতে যায় না, তখন সে নিজের ঘরে আগুন লাগা নিশ্চিত করে নেয়।

২১. চিড়িয়াখানায় যাঁরা আছে, তাদের মগজ ও মানসিকতা নিয়ে অনেকেই মানুষকে পরিচালনা করেন!

২২. যে সমাজ যুক্তি ও চিন্তাচর্চায় যত অনগ্রসর, সে সমাজ হুজুগে তত অগ্রসর!

২৩. ভালোবাসার চেয়ে ভালো বাসা যখন দামি মনে হবে, তখন তুমি নিজেই নিজের মনের জানাযা পড়ে নিয়ো।

আরএম/

ad

পাঠকের মতামত

Comments are closed.