মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪ ।। ৮ শ্রাবণ ১৪৩১ ।। ১৭ মহর্‌রম ১৪৪৬


আলেম প্রার্থীদের কে কোথায় মনোনয়ন জমা দিলেন

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
শেয়ার
ছবি: আওয়ার ইসলাম

|| কাউসার লাবীব ||

ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে মনোনয়ন জমা দেওয়ার শেষ দিন ছিল বৃহস্পতিবার। ইতোমধ্যেই জল্পকল্পনার অবসান ঘটিয়ে নির্বাচনে অংশ নেওয়ার ঘোষণা দিয়েছে কওমি মাদরাসা ভিত্তিক ইসলামী দুই রাজনৈতিক দল।

দল দু’টি হলো- হাফেজ্জী হুজুর রহ. প্রতিষ্ঠিত মাওলানা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী নেতৃত্বাধীন বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন এবং মাওলানা আবুল হাসনাত আমিনী নেতৃত্বাধীন মুফতি আমিনী রহ. এর দল ইসলামি ঐক্যজোট।

এছাড়াও স্বতন্ত্র ও অন্যান্য দল থেকে বেশ কয়েকজন আলেম প্রার্থী আগামী সংসদ নির্বাচনে অংশ নিতে গতকাল মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। এই আলেম প্রার্থীরা কে কোথা থেকে মনোনয়ন জমা দিলেন?

শেষ সময়ে চমক দেখিয়ে নির্বাচনী ট্রেনে চড়া দল বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের নায়েবে আমির মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদীর কাছে জানতে চেয়েছিলাম তার দলে কে কোথায় মনোনয়ন জমা দিয়েছেন? তিনি জানান, বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের চেয়ারম্যান মাওলানা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী মুন্সিগঞ্জ-১ আসনের জন্য মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। আমি (মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী) ব্রাহ্মণবাড়ীয়া-৩, মুফতি সুলতান মহিউদ্দিন কুমিল্লা-২ থেকে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন।

তার দলের আরো বেশ কয়েকজন আলেম প্রার্থী মনোনয়ন জমা দিয়েছেন, তবে নিজ নির্বাচনী এলাকায় তিনি ব্যস্ত থাকায় সে তথ্য বিস্তারিত দিতে পারেন নি।

এদিকে মুফতি আমিনী রহ. এর দল ইসলামি ঐক্যজোট থেকে দলের চেয়ারম্যান মাওলানা আবুল হাসনাত আমিনী ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনের জন্য মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। এই আসন থেকে মুফতি আমিনী রহ. সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন।  

এছাড়া দলটির যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আলতাফ হোসাইন জানান, যুগ্ম মহাসচিব মুফতি মোহাম্মদ তৈয়ব হোসাইন ময়মনসিংহ-২, যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা ফজলুর রহমান গাজীপুর-১, আমি (যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আলতাফ হোসাইন) কুমিল্লা-২, সহকারী মহাসচিব মাওলানা শেরজান কিশোরগঞ্জ-৪, মুফতি ফয়জুল হক জালালাবাদী সিলেট-১, কেন্দ্রীয় সদস্য মাওলানা মেহেদী হাসান (ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫), মাওলানা খোরশেদ আলম কুমিল্লা-১১ থেকে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন। এছাড়াও আমাদের প্রায় ১শ’ জনের মতো প্রার্থী মনোনয়ন জমা দিয়েছেন।

অপরদিকে এই দুই দলের বাইরেও আওয়ামী লীগ থেকে মাওলানা আবু রেজা মুহাম্মদ নেজামউদ্দিন নদভী চট্টগ্রাম-১৫, জাতীয় পার্টি থেকে মাওলানা শহীদুল ইসলাম ফারুকী কুষ্টিয়া-২, জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের সাবেক কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি এডভোকেট মাওলানা শাহীনূর পাশা চৌধুরী সুনামগঞ্জ-৩ আসনে মনোনয়ন জমা দিয়েছেন।

এছাড়াও ইসলামিক ফ্রন্ট বাংলাদেশ, ইসলামিক ফ্রন্ট, বাংলাদেশ তরীকত ফেডারেশন, জাকের পার্টি ও বাংলাদেশ সুপ্রিম পার্টি থেকে কয়েকজন আলেম মনোনয়ন জমা দিয়েছেন।

অপরদিকে, আগামী দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে যায়নি নিবন্ধিত চারটি ইসলামী দল। দলগুলো হলো- চরমোনাই পীরের নেতৃত্বাধীন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ, শায়খুল হাদিস আল্লামা আজিজুল হক প্রতিষ্ঠিত বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস, শায়খ জিয়াউদ্দীন নেতৃত্বাধীন জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ ও মাওলানা আবদুল বাছিত আজাদের নেতৃত্বাধীন খেলাফত মজলিস।

প্রসঙ্গত, নির্বাচন কমিশন কর্তৃক ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী, নির্বাচনে মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ছিল গতকাল। এরপর বাছাই ১-৪ ডিসেম্বর, রিটার্নিং কর্মকর্তার সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল ও শুনানি ৬-১৫ ডিসেম্বর এবং ১৭ ডিসেম্বরের মধ্যে মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করা যাবে। প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হবে ১৮ ডিসেম্বর। নির্বাচনী প্রচারণা চলবে ১৮ ডিসেম্বর থেকে ৫ জানুয়ারি সকাল ৮টা পর্যন্ত। এরপর ৩০০ আসনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে আগামী ৭ জানুয়ারি।

কেএল/


সম্পর্কিত খবর


সর্বশেষ সংবাদ