রবিবার, ০৩ মার্চ ২০২৪ ।। ১৮ ফাল্গুন ১৪৩০ ।। ২২ শাবান ১৪৪৫


জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থার সম্মেলন অনুষ্ঠিত

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
শেয়ার
ছবি: আওয়ার ইসলাম

নিজস্ব প্রতিবেদক>>

‘ইনসাফ ভিত্তিক সমাজ, ইমাম খতীবদের অঙ্গিকার’ এ প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থা বাংলাদেশ চট্টগ্রাম মহানগরীর সম্মেলন ও কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে।

রোববার (৩ ডিসেম্বর) সকাল ৯ টায় চট্টগ্রাম প্রেসক্লাব মিলনায়তনে জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থা বাংলাদেশ চট্টগ্রাম বিভাগীয় সভাপতি ডা. মাওলানা রফিকউল্লাহ হামিদীর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত হওয়া এ সম্মেলনে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য ও দোয়া পরিচালনা করেন জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থা বাংলাদেশ এর প্রধান উপদেষ্টা, দারুল উলুম মঈনুল ইসলাম হাটহাজারী মাদরাসার মহাপরিচালক আল্লামা মুফতি খলিল আহমদ আল কুরাইশি।

সম্মেলনে আলেম-ওলামা ও ইমাম-খতীবদের সম্ভাবনা, সঙ্কট এবং করনীয় সম্পর্কে সার্বিক দিক নির্দেশনামূলক বক্তব্য প্রদান করেন সংগঠনের উপদেষ্টা ও হাটহাজারী মাদরাসার সিনিয়র মোহাদ্দিস, লেখক ও কলামিস্ট মাওলানা আশরাফ আলী নিজামপুরী।

তিনি জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থা বাংলাদেশ এর সার্বিক কার্যক্রম ও কর্মসূচিগুলো পর্যালোচনা করে বলেন, ইমাম ও খতীবগণ হচ্ছে সমাজের কর্ণধার, দেশ ও জাতিকে সঠিক দিক নির্দেশনা দেওয়াই হলো তাদের কাজ, এ কাজগুলো যাতে পরিপূর্ণ ভাবে আদায় করা হয় এজন্য জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থা বাংলাদেশ যে অগ্রণী ভুমিকা পালন করতেছে তা অত্যন্ত প্রশংসণীয় ও সময়োপযোগী, তাই দেশের সকল ইমাম ও খতীবদেরকে জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থার ব্যনারে এসে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করা প্রয়োজন। 

দেশের সার্বিক পরিস্থিতি ও খতীবদের করণীয় সম্পর্কে গুরুত্বপূর্ণ আলোচনা করেন সংগঠনের উপদেষ্টা, চট্টগ্রাম দারুল আফকার আল ইসলামিয়ার প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক মাওলানা জাকারিয়া হাসনাবাদি, জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থা বাংলাদেশ এর কেন্দ্রীয় আহবায়ক, মাওলানা মুফতি আবু তাহের আল মাদানি, চট্টগ্রামের বিশিষ্ট আলেম ও মিডিয়া ব্যক্তিত্ব মাওলানা জাকারিয়া খালেদ, জাতীয় ইমাম ও খতীব সংস্থা বাংলাদেশ এর কেন্দ্রীয় যুগ্ম সদস্য সচিব মাওলানা মু. আতাউর রহমান আলমপুরী, কেন্দ্রীয় যুগ্ম সদস্য সচিব, মাওলানা আবু আয়মান, কেন্দ্রীয় যুগ্ম সদস্য সচিব, মাওলানা আমিনুল ইসলাম মারুফ, প্রমূখ।

সম্মেলনে চট্টগ্রাম শহর ও জেলার বিভিন্ন প্রান্ত থেকে আগত ইমাম ও খতীবগণ সমাজ ও রাষ্ট্রের সার্বিক উন্নয়নে নিজেদের সম্পৃক্ততাকে আরো জোরদার করার প্রতি গুরুত্বারোপ করেন।

সম্মেলন বাস্তবায়ন কমিটির আহবায়ক মাওলানা মুফতি আব্দুল্লাহ আল নোমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হওয়া এ সম্মেলনে আরও বক্তব্য রাখেন হাফেজ মাওলানা মুফতি মাসুদুর রহমান, হাফেজ মাওলানা মুজিব বিন শফিক, মাওলানা মুজ্জাম্মিলুল হক, মাওলানা মুজাহিদুল ইসলাম, মাওলানা রিজওয়ানুল কবীর, মাওলানা মোবারক প্রমূখ।

সর্বশেষ আগামী  তিন মাসের জন্য মাওলানা মুফতি আব্দুল্লাহ আল নোমানকে আহবায়ক ও মাওলানা মুজিব বিন শফিককে সদস্য সচিব করে ১৫ জন বিশিষ্ট একটি আহবায়ক কমিটি গঠন করা হয়।

কেএল/


সম্পর্কিত খবর


সর্বশেষ সংবাদ