বৃহস্পতিবার, ৩০ মে ২০২৪ ।। ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ ।। ২২ জিলকদ ১৪৪৫


এসএসসির পরীক্ষা হলে ফোন ব্যবহার, ১১ শিক্ষককে অব্যাহতি   

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
শেয়ার
ফাইল ছবি

এসএসসি পরীক্ষা চলাকালে কক্ষে স্মার্টফোন ব্যবহারের দায়ে ৫ পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়েছে। একই সঙ্গে ওই পরীক্ষার্থীদের সহায়তা করার অভিযোগে কক্ষ পরিদর্শকের দায়িত্বে থাকা ১১ জন শিক্ষককে অব্যাহতি প্রদান করা হয়েছে।

রোববার (১৮ ফেব্রুয়ারি) বগুড়রার শিবগঞ্জ উপজেলার গুজিয়া গার্লস স্কুল অ্যান্ড কলেজ কেন্দ্র এ ঘটনা ঘটে।

উপজেলা প্রশাসন সূত্র জানায়, চলমান এসএসসি পরীক্ষার ২য় দিন রবিবার বাংলা দ্বিতীয়পত্র পরীক্ষা চলছিল। এ সময় গুজিয়া গার্লস স্কুল অ্যান্ড কলেজ কেন্দ্রের কক্ষ পরিদর্শকদের সহযোগিতায় শিক্ষার্থীরা স্মার্ট ফোনের মাধ্যমে উত্তর সংগ্রহ করে লিখতে শুরু করে। এমন অসদুপায় অবলম্বন করার দায়ে ১১জন শিক্ষককে (কক্ষ পরিদর্শক) দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি প্রদান এবং পাঁচজন পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়।

অব্যাহতিপ্রাপ্ত কক্ষ পরিদর্শকরা হলেন- উপজেলার অভিরামপুর উচ্চবিদ্যালয়ের শিক্ষক পলাশ চন্দ্র রায়, ভরিয়া উচ্চবিদ্যালয়ের আয়শা সিতারা ও আব্দুল হাকিম, চণ্ডিহারা বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ের কামরুল ইসলাম ও হাবিবা খাতুন, দেউলি জহুরা বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ের শফিকুল ইসলাম, রফিকুল ইসলাম ও অঞ্জলী রানী রায়, গাংনগর উচ্চবিদ্যালয়ের উজ্জ্বল কুমার ও আব্দুস সামাদ এবং মোকামতলা উচ্চবিদ্যালয়ের মফিজুল ইসলাম।

এ ছাড়া অসদুপায় অবলম্বন ও স্মার্টফোন ব্যবহারের দায়ে ধাওয়াগির উচ্চবিদ্যালয়ের তিনজন, গুজিয়া উচ্চবিদ্যালয়ের একজন ও মহাব্বত নন্দীপুর উচ্চবিদ্যালয়ের একজন পরীক্ষার্থীকে বহিষ্কার করা হয়।

শিবগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) তাসনিমুজ্জামান জানান, পরীক্ষা চলাকালীন শিক্ষার্থীরা কক্ষ পরিদর্শকের সহযোগিতায় স্মার্টফোনে প্রশ্নপত্রের ছবি তুলে বাইরে পাঠিয়ে দেয়। বাহির থেকে প্রশ্নপত্রের উত্তর পরীক্ষা কক্ষে সরবরাহ করা হয়।

ওই কেন্দ্রে দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপজেলার সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা পরিতোষ কুমার বিষয়টি টের পেয়ে বিভিন্ন কক্ষ থেকে ৫টি স্মার্ট ফোন উদ্ধার করেন। যেসব পরীক্ষার্থীর কাছে স্মার্টফোন পাওয়া গেছে তাদের বহিষ্কার করা হয় এবং ওই পরীক্ষার্থীদের সহযোগিতার জন্য ১১ জন কক্ষ পরদির্শককে পরীক্ষার চলতি দায়িত্ব থেকে অব্যাহতি প্রদান করা হয়।

এনএ/


সম্পর্কিত খবর


সর্বশেষ সংবাদ